৩৫ টাকা রিচার্জ না করলেও হবে। জেনে নিন সিম চালু রাখার দুটি সহজ উপায়…

0
23499

বর্তমানে প্রায় প্রত্যেকটি মোবাইল অপারেটরদের একটি নতুন আপডেট এসেছে যে সব সিমে প্রতি মাসে ৩৫ টাকা করে রিচার্জ করতেই হবে, নাহলে আপনার সিম বন্ধ করা হবে। এই নিয়ম থেকে বিরত আছে রিলায়েন্স জিও ও বিএসএনএল। এই দুটি সিম ছাড়া আপনি যে সিমই ব্যবহার করবেন আপনাকে প্রতি মাসে ৩৫ টাকা করে রিচার্জ করাতেই হবে।

আগে ১০ টাকা ২০ টাকা রিচার্জ করা যেত, ভ্যালিডিটি ছিল লাইফটাইম। কিন্তু এখন ৩৫ টাকা ছাড়া রিচার্জ করতে হয়, আবার ভ্যালিডিটি ১ মাস। ফোন করার দরকার না পরলেও, টাকা শেষ না করতে পারলেও সেই টাকার মেয়াদ ১ মাস। ধরতে গেলে সেই টাকা নষ্ট।

রিচার্জ না করলে আউটগোইং তো বন্ধ হবেই আবার তার কিছুদিন পর ইনকামিংও বন্ধ করে দেওয়া হয়। এই ব্যাপারটি নিয়ে মহা মুশকিলে পড়েছেন অনেকেই। আসল কথা হল রিলায়েন্স জিও আসার পর প্রায় সকলেই সস্তায় জিও সিম কিনে ব্যবহার করছেন।

এর ফলে বাকি কোম্পানি গুলোর ব্যবসা খুব খারাপ চলছিলো। তাই বাকি ভোডাফোন, টাটা ডোকোমো, এয়ারটেল, আইডিয়া প্রভৃটি কোম্পানি গুলো এই নিয়ম চালু করেছে। প্রতিমাসে প্রয়োজন ছাড়া ৩৫ টাকা করে রিচার্জের হাত থেকে বাঁচতে একটাই উপায় আছে সকলের কাছে।

আর সেটা জিও বা বিএসএনএল এর স্মরনাপন্ন হওয়া। তার জন্য আপনাকে আপনার সিমটি পোর্ট করিয়ে নিতে হবে। পোর্ট করিয়ে আপনি বিএসএনএল করতে পারেন। এই সিমের সুবিধা হল প্রতি মাসে আপনাকে দরকার ছাড়া রিচার্জ করাতে হবেনা। আর ৩৬টাকা রিচার্জ করলে তার ভ্যালিডিটি ৬মাস থেকে ১বছর পর্যন্ত।

পোর্ট করানোর জন্য আপনি আপনি আপনার সিম থেকে আপনার সিম অপরেটরকে ম্যাসেজ করতে পারেন। বর্তমানে বেশিরভাগ লোক এই পদ্ধতিই অবলম্বন করছেন। আপনি যখন ম্যাসেজ করবেন তখন আপনার কাছে ফোন আসতে পারে আপনার সিম অপারেটরের থেকে।

সেখানে আপনাকে ভ্যালিডিটি বাড়ানোর জন্য অফার দেওয়া হবে। আপনি যদি চান তাহলে ভ্যালিডিটি বাড়িয়ে নিতে পারেন। সেখান থেকে প্রশ্ন আসতে পারে যে আপনি কি জন্য পোর্ট করাতে চান? তখন আপনাকে জানাতে হবে যে আপনি প্রতি মাসে ৩৫ টাকা রিচার্জ করতে পারছেন না, তাই বিএসএনএল বা জিও তে আপনার নম্বরটি পোর্ট করাতে চান।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here