প্রাক্তন স্ত্রীর সম্পর্কে যা বললেন প্রসেনজিত, শুনলে কানে আঙ্গুল দিতে হবে।

0
5305

১৮ বছর হয়ে গেল সম্পর্ক ভেঙ্গে গেছে প্রসেনজিত চ্যাটার্জি আর দেবশ্রী রায়ের। তার এক সময় বিয়ে করেছিল একে অপরকে পছন্দ করে। কিন্তু তাদের সম্পর্ক বেশি দিন টেকেনি। তার কথা বলতে হবে সে কথা ভাবতেও পারেন নি প্রসেনজিত। তিনি এখন বাংলা ফিল্ম ইন্ডাস্ট্রির বড় নায়ক। তিনি শুধু ইন্ডাস্ট্রির নায়ক বললে ভুল হবে, তিনি নিজেই ইন্ডাস্ট্রি।

তিনি যেমন একা হাতে ধরে রেখেছেন গোটা ইন্ডাস্ট্রি তেমন তার এক কথায় হয়ে যেতে পারে অনেক কিছু। কিন্তু এতে হয়তো তার পুরনো সম্পর্কের কোন পরিবর্তন আসবেনা। তিনি কিছুদিন আগে তার এই ইন্ডাস্ট্রিতে আসার ৩০ বছরের পূর্তি উপলক্ষ্যে একটি অনুস্টহানের আয়োজন করেছিলেন।

তিনি চেয়েছিলেন তার প্রাক্তন স্ত্রীকে সেই অনুষ্ঠানে ডাকতে। কিন্তু তাদের সম্পর্কের শেষে যে তাকে ‘না’ বলে চলে গিয়েছিলেন দেবশ্রী, সেই না আজও হ্যাঁ হয়নি। আর বোধয় কখনো হওয়া সম্ভবও নয়। দেবশ্রী তার প্রাক্তন স্বামীকে সঙ্গে সঙ্গে না বলে দেন।

অতিথিদের তালিকার অনেকে ছিলেন- অমিতাভ, অভিষেক, ঐশ্বর্য ও আরো অনেক বিখ্যাত অভিনেতা অভিনেত্রিরা। তারা এলেও সেখানে আসেননি দেবশ্রী রায়। প্রসেনজিতের সঙ্গে মনোমালিন্য হয়েছিল ঋতুপর্না সেনগুপ্তরও। কিন্তু তাও সব মান অভিমান ভুলে তিনি এসেছিলেন সেই অনুষ্ঠানে। টলিউডের একজন বড় ব্যাক্তিত্ব হিসাবে তার সুনাম কিছু কম নেই।

এমনকি তিনি এখন নিজেও প্রযোজনায় এসেছন। শুধু অভিনয় নয় তিনি ছড়িয়ে পরেছেন সিনেমার আরো বিভিন্ন রকম শাখায়। তিনি নিজেই বলেছেন যে তিনি সব সময় জুড়ে থাকতে চান বাংলা সিনেমা জগতের সঙ্গে। তিনি এখন কাজ করে চলেছেন আরো নতুন নতুন চরিত্র নিয়ে।

সেই চরিত্রের মধ্যে যেমন রয়েছে সুনীল গঙ্গোপাধ্যায়ের কাকাবাবু, তেমন রয়েছে জুলিয়াস সিজারের  আদলে বানানো জুলফিকর। এই বয়সেও তিনি অভিনয় করে চলেন। অক্লান্ত পরিশ্রম করে চলেছেন এখনও। এখনও তিনি এই বয়সে এসে নায়কের চরিত্রে অভিনয় করছেন। তাছাড়াও ফুটিয়ে তুলেছেন অনেক কঠিন কঠিন চরিত্র।

তিনি চ্যালেঞ্জ করেন তার নিজের কাজকেই। তাই তিনি আরো উন্নত করে চলেছেন নিজের প্রতিভা। তিনি যে টলিউডের এক ব্যাস্ত অভিনেতা তা বোঝা যাইয়। তিনি বলেছেন যে তিনি ব্যাস্ত থাক্তেই বেশি ভালোবাসেন। তিনি একজন খুব ভালো মনের মানুষও তাতে কোন সন্দেহ নেই।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here